॥ খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি ॥

খাগড়াছড়ি ২৯৮নং আসনে বির্তকিত নমিনেশন প্রাপ্ত আওয়ামীলীগের প্রার্থী কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরাকে পরিরর্তন, দ্বন্দ্ব নিরসন ও নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে করা শতাধিক মামলা প্রত্যাহারের দাবীতে খাগড়াছড়িতে মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করেছে আওয়ামীলীগের তৃণমুল নেতাকর্মীরা।

বুধবার সকাল ১১টায় নারিকেল বাগানস্থ জেলা আওয়ামীলীগের কার্যালয়ের সামনে থেকে শুরু হয়ে শাপলা চত্বর পর্যন্ত রাস্তার দু’পাশে মানববন্ধনে সাড়িবদ্ধ হয়ে প্রার্থী পরিবর্তনের দাবী জানান তৃণমুল নেতৃবৃন্দরা।

অভিলম্বে যোগ্য প্রাপ্তি না দিয়ে বির্তকিত নৌকার নমিনেশন প্রাপ্ত কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরাকে নির্বাচন করার সুযোগ দিলে খাগড়াছড়িতে নৌকার ভরাডুবির আশঙ্কা প্রকাশ করে নেতৃবৃন্দরা বলেন, জনবিচ্ছিন্ন কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা তার আত্মীয় স্বজনদের নিয়ে বিগত সময়ে ত্যাগী নেতাকর্মীদের বাদ দিয়ে হামলা-মামলা ও হয়রানীতে ব্যস্ত ছিল।

সে সাথে নিজের পচন্দের লোকজনদের নিয়ে দল পরিচালনার নামে ত্যাগীদের অবমুল্যায়ন করে হাজারো নেতাকর্মীদের হয়রানী করেছে বলে অভিযোগ করা হয়। এ সময় তার বিরুদ্ধে সরকারের কোটি কোটি টাকা লুটপাট, জেলা পরিষদের নিয়ন্ত্রণ করে সাধারণ মানুষের ভাগ্য নিয়ে ছিনিমিনি খেলাসহ পাহাড় সমান অভিযোগের কথা তুলে ধরেন বক্তারা কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরার বিরুদ্ধে অনাস্থা জানান। কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা সাধারণ মানুষের কাছেও অগ্রহণযোগ্য বলে দাবী করেন।

তাই কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরার নমিনেশন বাতিল করে যোগ্য প্রার্থীকে নির্বাচনের সুযোগ দিলে খাগড়াছড়িতে আওয়ামীলীগ বিপুল ভোটে জয়লাভ করার কথা জানান নেতৃবৃন্দরা। দ্রুত সময়ের মধ্যে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত না নিলে কঠোর কর্মসূচী দেওয়ার হুশিয়ারী জানানো হয়।

খাগড়াছড়ি জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক জাহির উদ্দিন ফিরোজের সঞ্চালনায় মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামীলীগের শ্রম বিষয়ক সম্পাদক কামাল উদ্দিন পাটোয়ারী, জেলা শ্রমিকলীগের আহবায়ক নুরনবী, খাগড়াছড়ি জেলা মুক্তিযোদ্ধালীগের নেতা ফরিদ,গুইমারা উপজেলা শ্রমিকলীগের সাবেক সভাপতি মো: শানু মিয়া, পানছড়ি উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো: আবু তাহের, রামগড় উপজেলা আওয়ামীলীগের প্রচার সম্পাদক শাহ আলম,মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি আবুল কাঁশেম ভূইয়া, দীঘিনালা উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি মো: মাহবুব প্রমূখ।