স্টাফ রিপোর্টার । হিলরিপোর্ট

রাঙামাটি: অবেশেষে কাপ্তাই হ্রদে (কাপ্তাই উপজেলা এলাকা) শুক্রবার সকাল থেকে মাছ ধরা স্বাভাবিক হয়েছে। শুক্রবার (২৮আগষ্ট) বিকেলে এমন তথ্য নিশ্চিত করেছেন, বাংলাদেশ মৎস্য উন্নয়ন করপোরেশন (বিএফডিসি) রাঙামাটি জেলার ব্যবস্থাপক লে. কমান্ডার (নৌ-বাহিনী) তৌহিদুল ইসলাম।

তিনি বলেন, পাহাড়ের একটি সশস্ত্র সংগঠন কাপ্তাই উপজেলার মৎস্য ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে গত ২৬আগষ্ট বিরাট অংকের চাঁদা দাবি করে আসছিলো। এরপর ব্যবসায়ীরা বিষয়টি বিএফডিসি কর্তৃপক্ষ এবং স্থানীয় প্রশাসনকে অবগত করলে জরুরী ভিত্তিতে ব্যবস্থা নেওয়া হয়।

কমান্ডার তৌহিদুল ইসলাম জানান, শুক্রবার সকালে কাপ্তাই উপজেলার কাপ্তাই হ্রদ এলাকায় জেলেরা মাছ ধরা শুরু করেছে। তাদের নিরাপত্তা দিতে প্রশাসনের পক্ষ থেকে জরুরী ভিত্তিতে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। আমরা পরিস্থিতির উপর সার্বক্ষণিক নজর রাখছি। যেকোন পরিস্থিতি মোকাবিলায় প্রশাসন প্রস্তুত আছে বলে জানান তিনি।

এদিকে গত ২৬আগষ্ট পাহাড়ের একটি সশস্ত্র গ্রæপ কাপ্তাই উপজেলার মৎস্য ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে আট লাখ টাকার চাদঁাঁ দাবি করে আসছিলো। চাঁদা না দিলে মাছ ধরা থেকে বিরত থাকতে নিষেধ করে। সরকারি একটি প্রভাবশালী গোয়েন্দা সংস্থা এবং একাধিক ব্যবসায়ী নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, সন্তু গ্রæফের নেতৃত্বাধীন পিসিজেএসএস এর সশস্ত্র গ্রæফ এই চাঁদা দাবি করেছে। কাপ্তাই উপজেলা বর্তমানে সন্তু গ্রফের পিসিজেএসএস এর নিয়ন্ত্রণে আছে বলে স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে।