স্টাফ রিপোর্টার । হিলরিপোর্ট

রাঙামাটি:কৃষক বাঁচলে, বাঁচবে দেশ সোনার এই বাংলাদেশ এই শ্লোগানকে সামনে রেখে রাঙামাটির লংগদু উপজেলায় স্বেচ্ছাশ্রমে দুই অসহায় দরিদ্র কৃষকের পাকা ধান কেটে মাড়াই করে ঘরে তুলে দিয়েছে উপজেলা আওয়ামীলীগ ও অঙ্গসহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

রোববার (১৭ মে) প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে সকালে উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আব্দুল বারেক সরকারের নেতৃত্বে উপজেলার ৬ নং মাইনীমূখ ইউনিয়নে ৭ নং ওয়ার্ডে জারুল বাগান এলাকার দরিদ্র ও অসহায় কৃষক লেদু মিয়া ও মো: মোস্তফা ২একর জমির পাকাধান কাটার কার্যক্রমে অংশ নেয় উপজেলা আওয়ামীলীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা।

এসময় নেতা কর্মীরা জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কৃষকের পাশে থাকতে বলেছেন এবং অসহায় কৃষকের ধান কেটে দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন। দেশের বিভিন্ন জেলায় কৃষকের সঙ্গে কাজ করছে। আমরাও তার অংশ হিসেবে কৃষকের সঙ্গে থেকে তাদের সহযোগিতা করছি। দেশের এই দুঃসময়ে জননেত্রী শেখ হাসিনার নির্ভীক সৈনিক হিসেবে আমরা সাধারণ মানুষের কাছে থেকে কাজ করার চেষ্টা করছি। এরই ধারাবাহিকতায় সারাদেশের মতো লংগদুতে ছাত্রলীগ ও স্বচ্ছাসেবকলীগের নেতৃবৃন্দরা ধান কাটা শুরু করেছে। আজ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে আমরা যৌথ উদ্যোগে এ আওয়ামীলীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগ ধান কাটার কাজে অংশ নেই।

পাকা ধান ঘরে তুলতে পেরে খুশি কৃষক লেদু মিয়া ও মোস্তফা। সংগঠনের নেতাকর্মীদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে তারা বলেন, তারা এগিয়ে না এলে আমাদের দুই বিঘা জমির পাকা ধান জমিতেই নষ্ট হতো। এগিয়ে আসার কারণে আমাদের উপকার হয়েছে।

এসময় ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ নেতা সাঈদ হোসেন এবং বেলাল হোসেন, লংগদু উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সুযোগ্য সভাপতি সাদেক হোসেন, যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক আবু বকর সিদ্দিক, সদস্য শাহ নজরুল ইসলাম, রাঙ্গামাটি জেলা ছাত্রলীগের সহ-সম্পাদক নেছার উদ্দিন হৃদয় এবং তরিকুল ইসলামসহ ৫০জন নেতা কর্মী ধান কাটার কাজে অংশ ।