॥ জুরাছড়ি প্রতিনিধি ॥

রাঙামাটির জুরাছড়ি উপজেলা হচ্ছে সবচেয়ে দূর্গম উপজেলা। এ উপজেলার বৃগুপাড়ার বাসিন্দাদের প্রধান সমস্যা হচ্ছে বিশুদ্ধ পানির অভাব। বিশুদ্ধ পানির অভাবে এ গ্রামের বাসিন্দারা দীর্ঘদিন ধরে নানা ধরণের পানিবাহিত রোগে ভুগছে। গ্রামের বাসিন্দরা প্রায় এক ঘন্টা পায়ে হেঁটে দূর্গম ঝর্ণায় গিয়ে পানি সরবরাহ করতো।

বিশুদ্ধ পানির সমস্যা দূরীকরণে গ্রামের বাসিন্দারা দীর্ঘদিন ধরে দাবি করে আসছিলো। অবশেষে গ্রামবাসীর পানির সংকট দূরীকরণে তাদের ডাকে সারা দিয়েছে জুরাছড়ি উপজেলার পরিষদ।

স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরের (এডিপি) অর্থায়নে বার্ষিক কর্মসূচি আওতায় ২০১৭-১৮ অর্থবছরে বৃগুপাড়ায় পাহাড়ি ঝর্ণা থেকে পাইপ লাইনের মাধ্যমে গ্রামের বাসিন্দাদের ঘরে ঘরে পানি সরবরাহের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

সোমবার (৩ সেপ্টেম্বর) সকাল ১১টার দিকে এ প্রকল্পের উদ্ধোধন করেছেন উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান রিটন চাকমা।
এসময় তার সফর সঙ্গী ছিলেন, জুরাছড়ি সদর ১নং ইউপি চেয়ারম্যান ক্যানন চাকমা, উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা কৌশিক চাকমা, ১নং ইউপি’র ৯নং ওয়ার্ডের সদস্য বকুল চাকমা, কার্বারী তরুন বিকাশ চাকমা,এরাইছড়ি মৌজার হেডম্যান রিতেশ চাকমা প্রমূখ।

এদিকে পানি পেয়ে উচ্ছাসিত কন্ঠে জুমচাষী শ্রী দেবী চাকমা বলেন, এক থেকে দেড় ঘন্টা হেটে পাহাড়ি ঝর্ণা থেকে খাবারের জন্য পানি আনতে হতো। এখন ঘরের সামনে পানি পাচ্ছি। সরকার আমাদের কষ্ট লাগবে এগিয়ে এসেছে, খুব ভাল লাগছে।

কাজের পরিদর্শন শেষে ভাইস চেয়ারম্যান রিটন চাকমা স্থানীয় গ্রামবাসীর সাথে কথা বলেন। এসময় তিনি বলেন, জনগণ আমাদেরকে ভোটদিয়ে নির্বাচিত করেছে। জনপ্রতিনিধির কর্তব্য হচ্ছে এলাকায় উন্নয়ন করা। তাই দলমত নির্বিশেষে জনকল্যাণে সকলকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান তিনি।