স্টাফ রিপোর্টার । হিলরিপোর্ট

রাঙামাটি: ধর্ষণ মামলার আসামী, বরকল উপজেলার ভূষণছড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মামুনুর রশীদ মামুন এর প্রাণনাশের হুমকি থেকে প্রতিকার চেয়ে সংবাদ সন্মেলন করেছে নাসরিন আক্তার নামের এক ভুক্তভোগী নারী। শনিবার (১০ অক্টোবর) বিকেলে রাঙামাটি শহরের একটি ব্যক্তিমালিকানাধীন রেস্টেুরেন্টে এই সংবাদ সন্মেলন করা হয়।

সংবাদ সন্মেলনে ওই নারী উপস্থিত থাকলেও অসুস্থ্য থাকার কারণে কথা বলতে না পারায় তার ব্যক্তিগত পারিবারিক সদস্য সাইফুল ইসলামের মাধ্যমে তার লিখিত বক্তব্যে পাঠের মাধ্যমে বলেন, অত্যাচারী চেয়ারম্যান মামুনের বিরুদ্ধে আমার বাবা নাছির হাওলাদার বাদী হয়ে চলতি বছরের ২৪জুন তারিখে বরকল থানায় ধর্ষণের অভিযোগ এনে ৯(১) ধারায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমল আইনে একটি মামলা দায়ের করেন।

চেয়ারম্যান মামুন কর্তৃক ধর্ষিত হওয়ার পর গত ২৭আগষ্ট আমি একটি কন্যা সন্তান প্রসব করি। মামলা থেকে বাঁচতে মামুন দীর্ঘ দু’মাস পলাতক থাকার পর বিজ্ঞ হাইকোর্ট থেকে গত ৯সেপ্টেম্বর ছয় সপ্তাহের অগ্রিম জামিন নেন। জামিন নেওয়ার পর থেকে তার ক্যাডার বাহিনী, ভূষণছড়া ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ডের মেম্বার সবুর তালুকদার, ৮নং ওয়ার্ডের মেম্বার মো. জলিল এবং বরকল রাগীব রাবেয়া কলেজের অফিস সহকারী আরিফুল ইসলাম ওরফে আরিফ সিকদারকে দিয়ে আমাকে, আমার পরিবারকে মামলা তুলে নিতে প্রাণনাশের হুমকি প্রদান করছে। পাশাপাশি রাঙামাটি আদালতে আমার বাবার বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে।

লিখিত বক্তব্যেও মাধ্যমে তিনি আরও বলেছেন, চেয়ারম্যান মামুন স্থানীয়দের হয়রানী করতে একের পর তাদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের করছেন। চেয়ারম্যান মামুন এবং তার ক্যাডার বাহিনীর ভয়ে আমি আমার কন্যা শিশুটিকে নিয়ে অসহায় হয়ে প্রশাসনের কাছে বিচার চেয়ে রাস্তায় রাস্তায় ঘুরছি।

ওই নারী জানান, চেয়ারম্যান মামুনের অত্যাচারের শেষ নেই। তিনি তার নির্বাচনী এলাকার স্থানীয় এক ব্যক্তির জায়গা জবর দখল এবং বিভিন্ন প্রজাতির গাছ কাটার অভিযোগে ওই ব্যক্তির করা মামলায় আসামী হয়ে বর্তমানে কারাগারে আছেন। যার মামলা নং ৩৩৭।

ওই নারী লিখিত বক্তব্যে আরও জানান, এর আগেও চেয়ারম্যান মামুনকে অনৈতিক কর্মকান্ডের অভিযোগে বরকল উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি পদ থেকে স্থায়ী ভাবে বহিষ্কার করা হয়।

তিনি বলেন, সারাদেশের মানুষ আজ ধর্ষণের বিরুদ্ধে সোচ্ছার। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এইসব অপকর্মের বিরুদ্ধে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছেন। তাই আজকের এই সংবাদ সন্মেলনের মাধ্যমে সরকারের কাছে জোর দাবি জানাচ্ছি, সন্ত্রাসী মামুন এর জামিন আবেদন বাতিল করে দেশের প্রচলিত আইনে শাস্তি প্রদান করা হউক। তাহলে তার দ্বারা এই ভূষণছড়া ইউনিয়নে আর কোন অপকর্মের ঘটনা ঘটবে না।

সংবাদ সন্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, ভুক্তভোগী নাসরিন আক্তার, তার বাবা নাছির হাওলাদার এবং ফুফু সায়েরা বেগম।