॥ স্টাফ রিপোর্টার ॥

রাঙামাটি, খাগড়াছড়ি এবং বান্দরবান জেলায় ৭-৮মে পর্যন্ত একযোগে ৪৮ঘন্টার হরতালের ডাক দিয়েছে যৌথভাবে পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদ এবং পার্বত্য নাগরিক পরিষদ। শনিবার (৫মে) দুপুরে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতির মাধ্যমে সংগঠনগুলো তাদের এ কর্মসূচি ঘোষণা করে।

বিবৃতির মাধ্যমে আরও বলা হয়, হরতাল কর্মসূচি পালন করার আগে রোববার ( ৬মে) তিন পার্বত্য জেলায় একযোগে কালো পতাকা মিছিল এবং প্রতিবাদ সমাবেশ করবে সংগঠনগুলো।

এসব কর্মসূচি পালনের কারণ হিসেবে সংগঠনগুলো উল্লেখ করে বলেন, খাগড়াছড়িস্থ মাটিরাঙা উপজেলায় অপহৃত তিন বাঙ্গালী উদ্ধার, শুক্রবার নানিয়ারচর ঘটনায় নিহত বাঙ্গালী গাড়িচালক সজিব হাওলাদার হত্যাকারীদের গ্রেপ্তার এবং সশস্ত্র সন্ত্রাসী সংগঠন জেএসএস, ইউপিডিএফসহ পাহাড়ের সকল সশস্ত্র সংগঠন নিষিদ্ধের দাবীতে পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদ এবং পার্বত্য নাগরিক পরিষদ এ কর্মসূচী পালন করবে।

  • Facebook
  • Twitter
  • Print Friendly

এ বিষয়ে পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদ কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক শাহাদাৎ ফরাজী সাকিব বলেন, উপজাতি সশস্ত্র সন্ত্রাসী সংগঠন ইউপিডিএফ এবং জেএসএস’র সন্ত্রাসী কর্মকান্ডে পাহাড় আজ অশান্ত। চলতি বছরের ১৬ এপ্রিল খাগড়াছড়ির মহালছড়ি উপজেলার মাইসছড়ি নামক এলাকায় মাটিরাঙা উপজেলার তিন বাঙ্গালী ব্যবসায়ী উপজাতি সন্ত্রাসী দ্বারা অপহৃত হন। অপহরণের ২১ তম দিন অতিবাহিত হলেও এখন পর্যন্ত অপহৃতরা উদ্ধার হয়নি বলে এ নেতা জানান।

তিনি আরও বলেন, এছাড়া শুক্রবার ৪মে রাঙামাটির নানিয়ারচর উপজেলায় নিরীহ বাঙ্গালী গাড়িচালক সজিব হাওলাদার-কে পার্বত্য চট্টগ্রামে উপজাতি সন্ত্রাসী গোষ্ঠী ব্রাশ ফায়ার করে নির্মমভাবে হত্যা করে। যার দায়ভার কোন ভাবেই অত্র অঞ্চলের উপজাতি সশস্ত্র সন্ত্রাসী সংগঠন ইউপিডিএফ, জেএসএস’ এড়াতে পারে না। এ হত্যাকান্ডের জন্য পিবিসিপি’র পক্ষ থেকে তিনি তীব্র নিন্দা জানান।

পার্বত্য চট্টগ্রাম সন্ত্রাসমুক্ত করার লক্ষে উক্ত কর্মসূচীতে তিন পার্বত্য জেলার (রাঙামাটি,খাগড়াছড়ি,বান্দরবান) সকল স্তরের জনগণকে সর্বাত্মক এবং শান্তিপূর্ণভাবে এসব কর্মসূচি পালনের জন্য অনুরোধ জানান এ নেতা।