॥ আবু নাছের,বাঘাইছড়ি ॥

রাঙামাটির বাঘাইছড়ি উপজেলা সড়কের বেহালদশা। বৃষ্টি শুরু হলে চরম দুর্ভোগের শিকার হয় স্থানীয়রা। উপজেলা শহরের সাথে যোগাযোগ যেমন-শিজক,উগলছড়ি, বাঘাইছড়ি, বটতলী, লাইল্যাঘোনা এবং উপজেলা সদর হয়ে বাবুপাড়া, তালুকদার পাড়া, জীবতলী এবং বাঘাইছড়ি সড়ক উল্লেখযোগ্য। সড়কের বেহাল হওয়ায় এসব এলাকার ২৫হাজারের মতো বাসিন্দা বিপাকে পড়েছে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে- উল্লেখিত সড়কগুলোতে উন্নয়ন কাজ চলছে বহুদিন ধরে। ঠিকাদারদের গাফিলতির কারণে সড়কের এমন বেহাল হয়েছে বলে স্থানীয়রা দাবি করেন।

স্থানীয় সরকার প্রকৌশলী (এলজিডি) মনিরুজ্জামান জানান, বাঘাইছড়িকে মডেল উপজেলা করার লক্ষে আমাদের সকল উন্নয়ন কাজ একসাথে চলমান থাকায় আর আকস্মিক বৃষ্টির কারনে জনগনের সাময়িক অসুবিধা হচ্ছে। তবে আমরা সব সময় মাঠে আছি এবং ঠিকাদারকে নির্দেশনা দিয়ে দিছি আশা করছি অতি দ্রুত এ সকল উন্নয়ন কাজ সম্পুর্ন হবে।

৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর বাহার উদ্দিন সরকার জানান, সরকারের ভিশন বাস্তবায়নের লক্ষে আমাদের মেয়রের নেতৃত্বে আমরা কাউন্সিলররা মাঠ পর্যায়ে কাজ করে যাচ্ছি। ২০২১ সালের মধ্যে বাঘাইছড়ি পৌরসভার জন্য গুরুত্বপূর্ণ সড়কগুলোর সকল উন্নয়ন কাজ শেষ হলে জনদূর্ভোগ কমবে বলে আশা করছি।

এলাকাবাসি জানান, বৃষ্টির কারনে রাস্তায় কাঁদায় বিদ্যালয়গামী ছাত্রী -ছাত্রী সহ বিভিন্ন শ্রেনী পেশার মানুষ দুর্ভোগে পড়েছে।

সরেজমিনে রাবার ফেক্টরীর সামনে বাবুপাড়া, উগলছড়ি ব্রীজ ও বিজিবি ক্যাম্পের সামনে রাস্তা মেরামত কালভার্ট ও ব্রীজ নির্মানের কাজ চলার কারনে আর হঠাৎ বৃষ্টি পড়ায় রাস্তা কাদায় স্যাঁত স্যাতে হয়ে পড়ে। এলাকাবাসিসহ ইজিবাইক, অটোরিকশা, মটর সাইকেল,ভ্যান, রিকশায় চলাচল কিছু যায়গায় বন্ধ থাকায় অনেককে কাদার মধ্যে পায়ে হেটে যেতে দেখা গেছে।

বক্কর নামে একজন অটো চালক জানান, রাস্তার উন্নয়ন কাজ চলমান থাকায় এবং অনেক জায়গায় ভাঙাচোরা থাকার কারণে প্রায় সময় তার অটো ক্ষতিগ্রস্থ হয়। এ জন্য বেশি মাল নেয়া যায় না। পেটের দায়ে বাধ্য হয়ে ভাঙাচোরা রাস্তায় চলাচল করতে হচ্ছে।