॥ মঈন উদ্দীন বাপ্পী ॥

বর্ণাঢ্য আয়োজনের মধ্যে দিয়ে রাঙামাটিতে শেখ রাসেল স্মৃতি নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৮অক্টোবর) বিকেলে জেলা শহরের উন্নয়ন বোর্ড ঘাট সংলগ্ন কাপ্তাই হ্রদে এ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়।

পুরুষ (বড় নৌকা -২১ জন) নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতায় ৬টি দল অংশ গ্রহণ করে। এদের মধ্যে পয়েল চাকমা ও তার দল প্রথম স্থান অধিকার করে। পুরুষ্কার হিসেবে তারা জিতে নেয় ৫০হাজার টাকা। দ্বিতীয় স্থান অধিকার করে সুশান্ত চাকমা এবং তার দল। পুরুষ্কার হিসেবে তারা জিতে নেয় ৩০হাজার টাকা এবং তৃতীয় স্থান অধিকার করে যুবরাজ ত্রিপুরা এবং তার দল। পুরুষ্কার হিসেবে তারা জিতে নেয় ২৫হাজার টাকা।

পুরুষ সাম্পান বাইস (২জন) প্রতিযোগিতায় ৫টি দল অংশ গ্রহণ করে। এদের মধ্যে প্রথম স্থান অধিকার করে জামাল ও তার সঙ্গী। পুরুষ্কার হিসেবে তারা জিতে নেয় ১০হাজার টাকা। দ্বিতীয় স্থান অধিকার করে নজরুল ও তার সঙ্গী। পুরুষ্কার হিসেবে তারা জিতে নেয় ৮হাজার টাকা এবং তৃতীয় স্থান অধিকার করে দিদার ও তার সঙ্গী। পুরুষ্কার হিসেবে তারা জিতে নেয় ৫হাজার টাকা।

নারী (মাঝারী নৌকা-১৫জন) নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতায় ৫টি দল অংশ গ্রহণ করে। এদের মধ্যে অন্তরা ত্রিপুরা ও তার দল প্রধম স্থান অধিকার করে। পুরুষ্কার হিসেবে তারা জিতে নেয় ৫০হাজার টাকা। দ্বিতীয় স্থান অধিকার করে স্বপ্না ত্রিপুরা ও তার দল। পুরুষ্কার হিসেবে তারা জিতে নেয় ৩০হাজার টাকা এবং তৃতীয় স্থান অধিকার করে অনিতা চাকমা ও তার দল। পুরুষ্কার হিসেবে তারা জিতে নেয় ২৫হাজার টাকা।

এদিকে একই দিন বিকেলে কাপ্তাই হ্রদে রাঙামাটির ইতিহাসে প্রথমবারের মতো কায়ার্ক প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। এ প্রতিযোগিতায় ১২টি নারী দল অংশ নেন। প্রতিটি কায়ার্কে দু’জন নারী অবস্থান নেন।

এদের মধ্যে প্রথম স্থান অধিকার করে অপূর্ণা চাকমা ও তার সঙ্গী। পুরুষ্কার হিসেবে তারা জিতে নেয় ১০হাজার টাকা। দ্বিতীয় স্থান অধিকার করে তাপসী চাকমা ও তার সঙ্গী। পুরুষ্কার হিসেবে জিতে নেয় ৮হাজার টাকা এবং যুগ্ম ভাবে তৃতীয় স্থান অধিকার করে জিনা চাকমা ও তার সঙ্গী এবং নমিতা দাশ এবং তার সঙ্গী। তারাও পুরুষ্কার হিসেবে ৫হাজার টাকা করে জিতে নেয়।

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কনিষ্ট পুত্র শেখ রাসেলে’র জন্মদিন উপলক্ষ্যে রাঙামাটি জেলা ক্রীড়া সংস্থার আয়োজনে এবং পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড’র পৃষ্টপোষকতায় আয়োজিত শেখ রাসেল স্মৃতি নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতায় প্রধান অতিথি ছিলেন- পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড’র চেয়ারম্যান নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা।

বিশেষ অতিথি ছিলেন- পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের ভাইস চেয়ারম্যান তরুণ কান্তি ঘোষ, রাঙামাটি রিজিয়নের ব্রিগেড কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সৈয়দ রিয়াদ মেহমুদ, ডিজিএফআই রাঙামাটি শাখার কমান্ডার শামসুল আলম, রাঙামাটি জেলা প্রশাসক একেএম মামুনুর রশীদ, পুলিশ সুপার আলমগীর কবির, সিভিল সার্জন ডা: শহীদ তালুকদারসহ প্রশাসনের অন্যান্য কর্মকর্তা এবং সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।

প্রতিযোগিতা শেষে অনুষ্ঠানে আগত অতিথিদের সন্মননা ক্রেষ্ট তুলে দেন রাঙামাটি জেলা ক্রীড়া সংস্থার সদস্যরা। এরপর অতিথিরা বিজয়ীদের মাঝে পুরুষ্কার বিতরণ করেন এবং শেখ রাসেলের জন্মদিনের কেক কাটেন।