॥ মঈন উদ্দীন বাপ্পী ॥

আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে রাঙামাটি সদরে নৌকা প্রতীক নিয়ে উপজেলা চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন করতে চাই বর্তমান কেন্দ্রীয় যুবলীগের সহ-সম্পাদক মুজিবুর রহমান দিপু। এজন্য তিনি তার জীবন বৃত্তান্ত জেলা আ’লীগের দলীয় কার্যালয়ে জমা দিয়েছেন।

মুজিবুর রহমান দিপু রাঙামাটির ৯০ দশকের ইতিহাসে দলীয় দুর্দিনের সময় অতিপরিচিতি মুখগুলোর মধ্যে অন্যতম। একাধিকবার জেল-জুলুম কেটেছেন দলের পরিক্ষীত এ সৈনিক। তারপরও দলের দুর্দিনে হাল ছেড়ে সরে যাননি। আওয়ামী যুবলীগ’র সাথে জেলা এবং কেন্দ্রীয় রাজনীতি মিলে ৩০বছরের অধিক সময় ধরে জড়িতে রয়েছেন।

এর আগে মুজিব কেন্দ্রীয় যুবলীগের দু’বার সদস্য হওয়ার পাশাপাশি রাঙামাটি জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক এবং প্রচার সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেছেন।

  • Facebook
  • Twitter
  • Print Friendly

মুজিব একজন সফল ব্যবসায়ী। তিনি বর্তমানে বাংলাদেশ পরিবার পরিকল্পনা সমিতি রাঙামাটি জেলা ইউনিটের সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন। এছাড়া তিনি রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি, রাঙামাটি ডায়াবেটিকস সমিতি এবং স্থানীয় বিভিন্ন ক্রীড়া সংস্থার সাথে জড়িত রয়েছেন।

কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতা মুজিব পাহাড়ের অনলাইন দৈনিক পত্রিকা হিলরিপোর্ট ২৪.নিউজ-এ তার কর্মকান্ড এবং নির্বাচন নিয়ে সাক্ষাৎকার দিয়েছেন।

মুজিব বলেন- বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে ভালবেসে জীবনের ৩০টা বছর ধরে আ’লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত রয়েছি। দলীয় কার্যক্রম চালাতে গিয়ে জেল কেটেছি বহুবার; তবুও পিছপা হয়নি। দলের দুর্দিনে সামনে থেকে দলীয় নেতা-কর্মীদের পাশে থেকেছি এবং সাধ্যমত সহায়তা করার চেষ্টা করেছি।

মুজিব আরও বলেন- দেশ, দল এবং দলীয় নেতা-কর্মীদের জন্য কাজ করতে চাই। প্রত্যেক মানুষের মনে একটি স্বপ্ন থাকে সামনে থেকে নেতৃত্ব দেওয়ার।

মুজিব জানান- এত বছর দলের সাথে জড়িত রয়েছি। দল অনেকবার ক্ষমতায় না থাকলেও দলকে ছেড়ে যায়নি। দলীয় সকল কর্মকান্ডে জড়িত ছিলাম।

যুবলীগ নেতা মুজিব আরও জানান- বর্তমান সরকার সারাদেশে উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত করার জন্য বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে। এ ধারাবাহিকতায় জনপ্রতিনিধিত্ব করার লক্ষ্যে রাঙামাটি সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে দলীয় প্রতীক নৌকা নিয়ে নির্বাচন করতে চাই। এজন্য দলীয় কার্যালয়ে নিজের জীবন বৃত্তান্ত জমা দিয়েছি।

তিনি বলেন- দীর্ঘ তিনদশক ধরে দলের সাথে জড়িত রয়েছি। যুবলীগের এ নেতা প্রধানমন্ত্রী ও আ’লীগের সভানেত্রী শেখ হাসিনার উদ্ধৃতি দিয়ে বলেন- যারা দলের সাথে ১২ বছর ধরে জড়িত রয়েছেন তারাই দলীয় মনোনয়ন পাবেন। আর সেই আশা থেকে আমি প্রত্যাশা করতে পারি দল আমাকে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে রাঙামাটি সদরে চেয়ারম্যান পদে দলীয় প্রতীক নিয়ে নির্বাচন করার জন্য অনুমতি প্রদান করবেন।

মুজিব আরও বলেন- দলকে ভালবাসি। দলের স্বার্থে অতীতে সবকিছু করেছি। বর্তমানেও করে যাচ্ছি। দল যাকে মনোনয়ন প্রদান করবেন তার জন্য দলের স্বার্থে কাজ করে যাবো।

যুবলীগের জৈষ্ঠ্য এ নেতা জানান- দল যদি আমাকে মনোনয় প্রদান করে তাহলে দেশ, দেশের মানুষ, দল এবং দলের স্বার্থে কাজ করে যাবো। নিজের দায়িত্ব স্থান থেকে নেতা-কর্মীদের উন্নয়নে অতীত থেকে আরও ভাল ভাবে কাজ করবেন বলে যোগ করেন।

প্রসঙ্গত: বর্তমানে কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতা মুজিবুর রহমান দীপু ছাড়াও জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ-সভাপতি শহিদুজ্জামান মহসিন রোমান রাঙামাটি সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে দলীয় প্রতীক নিয়ে চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন করার জন্য দলীয় কার্যালয়ে তার জীবন বৃত্তান্ত জমা দিয়েছেন। এ নিয়ে রাঙামাটি সদরে আ’লীগের হয়ে দু’জন চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী হয়েছেন।